Home / জেলার খবর / সিসি বস্নক সরে রাস্তা হুমকির মুখে

সিসি বস্নক সরে রাস্তা হুমকির মুখে

রাজিবুল হক সিদ্দিকী, কিশোরগঞ্জ থেকে:-
হাওর উপজেলা অষ্টগ্রামে এলজিইডির নির্মাণাধীন প্রায় অর্ধশত কোটি টাকার বাঙ্গালপাড়া-ব্রাহ্মণবাড়িয়া রোডের সিসি বস্নক সরে যাওয়ার কারণে মারাত্মক ঝুঁকিতে রয়েছে রাস্তাটি। এলজিইডি এই রাস্তাটি মারাত্মক ক্ষতির সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানা গেছে। এ বিষয়ে স্থানীয় প্রশাসন নির্বিকার রয়েছেন বলে এলাকাবাসী জানান।
অষ্টগ্রাম উপজেলা এলজিইডি দফতর সূত্রে জানা যায়, অষ্টগ্রাম উপজেলার বাংগাল পাড়া হয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার চাতল পাড় পর্যন্ত সাড়ে ৭ কিলোমিটার রাস্তাটি নির্মাণে ব্যয় হচ্ছে ৪৬ কোটি টাকা। এর মধ্যে রয়েছে ৪টি সেতু ও গত ২০১৭ সালে কাজ শুরু করে ২০১৮ সালে জুনে শেষ হওয়ার কথা থাকলেও স্থানীয় এলজিইডি দফতরের গাফিলতি কারণে এখন পর্যন্ত এই রাস্তার কাজ শেষ না হওয়ায় সংশয় প্রকাশ করছে এলাকাবাসী। এক দিকে রাস্তার সিসি বস্নক সরে যাওয়া অন্যদিকে রাস্তার তীরবর্তী নদী ভাঙনের কারণে এমনিতে যথেষ্ট ঝুঁকিতে রয়েছে রাস্তাটি।
এলাকাবাসীর সাথে কথা বললে তারা জানান, এই রাস্তাটি হাওরবাসীর স্বপ্ন, কিন্ত এলজিওডি উদাসীনতায় হাওরবাসীর এ স্বপ্ন ভেঙে যাচ্ছে। অষ্টগ্রাম ব্রাহ্মণবাড়িয়ার যাওয়ার একমাত্র যোগাযোগের রাস্তাটি কাজ শেষ হওয়ার আগেই এমন অবস্থা কি আর বলার আছে?
গত বৃহস্পতিবার বাংগালপাড়া চাতল পাড় রাস্তা ঘুরে দেখা যায়, বাংগাল পাড়া-চাতলপাড়ে রাস্তাটি দিয়ে অটোবাইক, মোটরসাইকেল লোকজন চলাচল করছে। নাজিরপুরের পাশে বেশ কিছু সিসি বস্নক উঠে রাস্তার পাশেই পড়ে আছে। বেশ কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানে কোনো লোক এবং স্থানীয় এলজিইডির দফতরের কাউকে পাওয়া যায়নি।
এ বিষয়ে উপজেলা প্রকৌশলী মাহবুব মোর্শেদ বলেন, এমনটি হওয়ার কথা না, আর আমি অষ্টগ্রামের বাহিরে থাকায় এখানে কি কাজ হচ্ছে আমি জানি না। তবে আজই আমি ফিরছি সেখানে গিয়ে দেখছি। এই ব্যাপারে এলজিইডির কিশোরগঞ্জের জেলা নির্বাহী প্রকৌশলী মো. আশরাফ আলী খান বলেন, যেহেতু রাস্তাটি নতুন সেই ক্ষেত্রে অতিবর্ষণের কারণে এমনটি হতে পারে। রাস্তাটি এমন অবস্থা দেখার দায়িত্বে কারো আছে কিনা? এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন দায়িত্ব থেকে কেউ বাদ যাওয়ার সুযোগ নেই, বিষয়টি জরুরি দেখছি।

Loading...

Check Also

আমতলীতে ১৪ মামলার আসামি গ্রেফতার

বরগুনা প্রতিনিধি বরগুনার আমতলী উপজেলা থেকে ১৪টি মাদক মামলার আসামি মো. কাওছার নামের একজনকে অস্ত্র-গুলি ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *