Home / তথ্য প্রযুক্তি / হুয়াওয়ের সহায়তায় চালু হচ্ছে বিশ্বের প্রথম ৫জি স্মার্ট হোটেল

হুয়াওয়ের সহায়তায় চালু হচ্ছে বিশ্বের প্রথম ৫জি স্মার্ট হোটেল

তথ্য প্রযুক্তি ডেস্ক, ঢাকা প্রতিদিন.কম ১৯ এপ্রিল : ৫জি ডিজিটাল ইনডোর সিস্টেম ও ৫জি ক্লাউড এক্স প্রযুক্তির প্রয়োগে নতুন মাত্রার হোটেল অভিজ্ঞতা আসতে চলেছে।

বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান হুয়াওয়ে যৌথভাবে ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন ও শেনজেন টেলিকমের সঙ্গে বিশ্বের প্রথম ৫জি স্মার্ট হোটেল তৈরির জন্য কৌশলগত সহযোগিতা চুক্তি স্বাক্ষর করেছে।

হোটেল ইন্ডাস্ট্রির সমন্বিত টার্মিনাল ও ক্লাউড প্রযুক্তির সঙ্গে প্রথম এন্ড-টু-এন্ড ৫জি নেটওয়ার্ক প্রবর্তন করার মাধ্যমে প্রকল্পটি ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন হোটেলকে ৫জি স্মার্ট হোটেলে রূপান্তরিত করবে।

অতিথিদের সেরা উদ্ভাবনী ও বিলাসবহুল অভিজ্ঞতা দিতে এবং ৫জি প্রযুক্তির মাধ্যমে সমগ্র হোটেল শিল্পকে ডিজিটাল করার পথকে সুগম করবে এই উদ্যোগ।

শেনজেন টেলিকম ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেনে হুয়াওয়ের ৫জি নেটওয়ার্ক ইকুইপমেন্ট ব্যবহার করছে যাতে নিরবচ্ছিন্নভাবে ইনডোর ও আউটডোর ৫জি কভারেজ নিশ্চিত করা যায়। এটি একটি নতুন প্রজন্মের হোটেল পরিষেবার প্ল্যাটফর্ম হিসেবে গণ্য হবে।

অতিথিরা ৫জি স্মার্টফোন ও গ্রাহককেন্দ্রিক সরঞ্জাম ব্যবহারের মাধ্যমে ৫জি হোটেল অ্যাপ্লিকেশনের সুবিধাগুলো ভোগ করতে পারবেন। এছাড়াও এতে থাকবে ৫জি ওয়েলকাম রোবট, ৫জি ক্লাউড কম্পিউটিং টার্মিনাল, ৫জি ক্লাউড গেম এবং ৫জি ক্লাউড ভার্চুয়াল রিয়েলিটি (ভিআর) রোয়িং মেশিন যা ব্যবসায়িক কাজে আসা কিংবা ভ্রমণরত অতিথিদের জন্য দক্ষ কর্মপরিবেশ এবং অনন্য বিনোদন নিশ্চিত করবে।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে চীনের রিয়েল এস্টেট অ্যাসোসিয়েশন, গোল্ডেন সানের সাংস্কৃতিক বাণিজ্যিক পর্যটন কমিটির মহাসচিব কাই ইউন, শেনজেন ওসিটি হোটেল ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি লিমিটেডের জেনারেল ম্যানেজার, চায়না টেলিকম শেনজেন শাখার ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার ফেং ওয়েই এবং হুয়াওয়ে ওয়্যারলেস সলিউশন এর চিফ মার্কেটিং অফিসার ড. পিটার ঝু মূল বক্তব্য দেন।

হুয়াওয়ের ওয়্যারলেস সলিউশনের চিফ মার্কেটিং অফিসার ড. পিটার ঝু বলেন, ‘৫জি এখন আমাদের দোরগোড়ায় রয়েছে – এই বছর হয়ে যাওয়া বসন্ত উৎসবের ভিডিও ফোরকে আল্ট্রা হাই ডেফিনিশন মানে সম্প্রচার করা থেকে শুরু করে আজকের দিনের ৫জি বিনোদন ও ইন্টারকন্টিনেন্টাল হোটেলের প্রেসিডেন্সিয়াল স্যুটগুলোর ব্যবসায়িক রূপান্তর- সব ক্ষেত্রে অভাবনীয় পরিবর্তন আনতে চলেছে ৫জি। ৫জি প্রযুক্তি বিভিন্ন শিল্পে প্রবেশ করেছে। এই অংশীদারত্বের মাধ্যমে শেনজেন টেলিকমের সঙ্গে আমরা ৫জি ডিজিটাল ইনডোর সিস্টেম ও ৫জি ক্লাউড এক্স প্রযুক্তি সরবরাহ করেছি যা হোটেলের বিভিন্ন বিষয়ের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ। এটি আমাদের উভয়পক্ষের ৫জি সক্ষমতার একটি প্রদর্শনী।’

তিনি বলেন, ‘হুয়াওয়ে ৫জি প্রযুক্তিতে স্বচ্ছ ও উন্মুক্তভাবে বিনিয়োগ চালিয়ে যাবে এবং শেনজেন টেলিকম ও ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেনের সঙ্গে মিলে ৫জি স্মার্ট হোটেল নির্মাণের জন্য নির্ভরযোগ্য ৫জি অবকাঠামো তৈরি করবে। আমরা আন্তরিকভাবে আরও শিল্প অংশীদারদেরকে এই উদ্যোগের সঙ্গে যোগ দিতে আমন্ত্রণ জানাচ্ছি, যাতে সবাই একসঙ্গে একটি সমৃদ্ধ ৫জি ইকোসিস্টেম গড়ে তুলতে পারি।’

শেনজেন ওসিটি হোটেল ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি লিমিটেডের জেনারেল ম্যানেজার গোল্ডেন সান বলেছেন, এই হোটেল সর্বদা অতিথিদের অভিজ্ঞতাকে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দেয়। যেহেতু ভোক্তাদের খরচ ক্রমেই বাড়ছে, তাই গ্রাহকরা উচ্চমান এবং সেবা আশা করছে। অতিথিরা সব সময় নতুন জিনিস এবং নতুন অভিজ্ঞতা আশা করে। শেনজেন টেলিকম এবং হুয়াওয়ের সঙ্গে যৌথ উদ্যোগটি এই হোটেলের জন্য নতুন সম্ভাবনার সুযোগ সৃষ্টি করেছে। উন্নত প্রযুক্তির ওপর ভিত্তি করে এখন আমরা আমাদের ভবিষ্যতের পরিকল্পনা ও সে অনুযায়ী কাজ করতে পারব।

তিনি বলেন, ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেনে ৫জি এক্সপেরিয়েন্স জোন দেখতে আমরা অতি আগ্রহ নিয়ে অপেক্ষা করছি কারণ আমাদের তিন অংশীদারদের জন্যই ৫জি হোটেল গড়ে তুলতে এই পদক্ষেপ একেবারে প্রথম। অন্যদিকে, আমরা ৫জি প্রযুক্তি প্রবর্তন করে স্মার্ট হোটেল এবং ডিজিটাল হোটেল রূপান্তরকে নিশ্চিত করতেও আশা করি।

গোল্ডেন সান আরও বলেন, আমরা হোটেলের বিভিন্ন বিষয়ে ৫জির আরও ব্যাপক প্রয়োগ করতে শেনজেন টেলিকম ও হুয়াওয়ের সঙ্গে সহযোগিতা করতে ইচ্ছুক। আমরা আশা করি আমাদের অভিজ্ঞতা হোটেল শিল্প ও পর্যটনকে ডিজিটাল করতে সহায়তা করবে।

চায়না টেলিকমের শেনজেন শাখার ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার ফেং ওয়েই বলেন, শেনজেন টেলিকমের কাছে ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন হলো অত্যন্ত সম্মানজনক একটি গ্রাহক। প্রচুর ভিআইপি গ্রাহকের সংখ্যা, ব্যবহারকারীদের উচ্চমানের অভিজ্ঞতা, স্বল্প সময়ে সেবা প্রদান এবং সেরা মানের নির্মাণ পরিবেশ নিশ্চিত করে নেটওয়ার্ক স্থাপন, পরিচালনা ও রক্ষণাবেক্ষণের জন্য অনেক বড় চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হয়।

তিনি বলেন, হুয়াওয়ের যৌথ প্রচেষ্টায় শেনজেন টেলিকম মাত্র দুই দিনের মধ্যেই প্রথমতলায় ও ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেনের প্রেসিডেন্সিয়াল স্যুটগুলিতে ৫জি নেটওয়ার্ক এক্সপেরিয়েন্স জোন স্থাপন করেছে। এর ফলে আমরা জিবিপিএস মানের ডাউনলোডের অভিজ্ঞতা নিশ্চিত করতে পেরেছি এবং ৫জি-সমর্থিত হোটেল অ্যাপ্লিকেশন চালু করেছি যেগুলোতে বড় মানের ব্যান্ডউইথ এবং শর্ট ডিলে প্রযুক্তির দরকার হয়। ভবিষ্যতে আমরা পুরো হোটেলে ৫জি নেটওয়ার্ক সরবরাহ করবো এবং ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন ও হুয়াওয়ে মিলে একসাথে বিশ্বব্যাপী ৫জি পাঁচ-তারকা হোটেলগুলোর জন্য অনুসরণীয় মানদণ্ড তৈরি করব।

ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন হলো চীনের প্রথম স্প্যানিশ ঘরানার বিলাসবহুল ব্যবসায়িক হোটেল। এটি শীর্ষস্থানীয় ও বৈশ্বিক ইভেন্টগুলোর জন্য একটি বড় অংশীদার। পুরো বছরজুড়ে ইন্টারকন্টিনেন্টাল শেনজেন তার সৃজনশীলতা, মননশীল পরিবেশ ও বিশেষায়িত পরিষেবার জন্য অনেক আন্তর্জাতিক ও দেশীয় হোটেল ইন্ডাস্ট্রি পুরস্কার জিতেছে।

প্রকল্পটির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের জন্য শেনজেন টেলিকম ও হুয়াওয়ে যৌথভাবে হোটেলের প্রথমতলায় এবং প্রেসিডেন্সিয়াল স্যুটগুলোতে ৫জি ডিজিটাল ইনডোর সিস্টেম স্থাপন করেছে। হোটেল লবিতে অতিথিরা ৫জি ডাউনলোড ও আপলোডের জন্য তাদের সিপিই বা স্মার্টফোনের মাধ্যমে ৫জি নেটওয়ার্কে ঢুকতে পারবেন।

৫জি সম্বলিত বুদ্ধিমান রোবটগুলোর মাধ্যমে অতিথিদের তথ্য সংগ্রহ করা, গন্তব্য নির্দেশিকা দেয়া ও পণ্য সরবরাহের মাধ্যমে হোটেল পরিসেবার মান আরও উন্নত হবে। নতুন নেটওয়ার্কে আচ্ছাদিত রাষ্ট্রীয় স্যুটগুলো অতিথিদের ক্লাউড ভিআর রোয়িং মেশিন, ক্লাউড গেমস ও ফোর-কে মানের চলচ্চিত্রের মতো ৫জি হোটেল পরিষেবা প্রদান করবে।

এই অনুষ্ঠানের জন্য নির্মিত এক্সপেরিয়েন্স জোনটি ছিল বিশ্বের দ্রুততম মোবাইল ডাউনলোড ও একটি অনন্য বহুমুখী টেলিযোগাযোগ ও অতিথি বিনোদন অভিজ্ঞতার বৈশিষ্ট্যযুক্ত।

হুয়াওয়ে বিশ্বের অন্যতম তথ্যপ্রযুক্তি সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান। সমৃদ্ধ জীবন নিশ্চিতকরণ ও উদ্ভাবনী দক্ষতা বৃদ্ধির মাধ্যমে একটি উন্নত ও সংযুক্ত পৃথিবী গড়ে তোলাই হুয়াওয়ের উদ্দেশ্য।

গ্রাহক-কেন্দ্রিক নতুনত্ব এবং উন্মুক্ত অংশীদারিত্বের দ্বারা পরিচালিত হয়ে হুয়াওয়ে একটি পরিপূর্ণ আইসিটি সমাধান পোর্টফোলিও প্রতিষ্ঠা করেছে যা গ্রাহকদের টেলিকম ও এন্টারপ্রাইজ নেটওয়ার্ক, ডিভাইস এবং ক্লাউড কম্পিউটিং-এর সুবিধাসমূহ প্রদান করে। প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বের ১৭০টির বেশি দেশ ও অঞ্চলে সেবা দিচ্ছে যা বিশ্বের এক তৃতীয়াংশ জনসংখ্যার সমান।

এক লাখ ৮০ হাজার কর্মী নিয়ে ভবিষ্যতের তথ্যপ্রযুক্তিভিত্তিক সমাজ তৈরির লক্ষ্যে হুয়াওয়ে কাজ করে চলেছে। এই বিশালসংখ্যক কর্মীরা বিশ্বব্যাপী টেলিকম অপারেটর, উদ্যোক্তা ও গ্রাহকদের সর্বোচ্চ মূল্যায়ন নিশ্চিত করতে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।

ঢাকা প্রতিদিন.কম/এআর

Loading...

Check Also

অতিরিক্ত ডিআইজি হলেন পুলিশের ২০ কর্মকর্তা

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা প্রতিদিন.কম : পুলিশ সুপার পদমর্যাদার ২০ কর্মকর্তাকে অতিরিক্ত ডিআইজি হিসেবে পদোন্নতি দেয়া ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *