Home / আইন আদালত / বিআরটিএ’র ভ্রাম্যমাণ আদালতে জেল-জরিমানা

বিআরটিএ’র ভ্রাম্যমাণ আদালতে জেল-জরিমানা

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজধানী ঢাকা ও আশপাশের এলাকায় অনিয়মের দায়ে বিভিন্ন যানবাহন ও চালকের বিরুদ্ধে পৃথক ৪টি অভিযান চালিয়েছে বিআরটিএ’র ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসময় ৬৬টি মামলায় ১ লাখ ৯৮ হাজার ৫শ’ টাকা জরিমানা আদায় এবং ৭ দালালকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদন্ড দেয়া ও ২টি গাড়ির কাগজপত্র জব্দ করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার দৈনিক ঢাকা প্রতিদিনে পাঠানো বিআরটিএ’র পরিচালক (এনফোর্সমেন্ট) নুর মোহাম্মদ মজুমদার স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, আজ মঙ্গলবার সকাল ১০টা হতে বিকেল ৫টা পর্যন্ত বিআরটিএ’র ভ্রাম্যমাণ আদালতের পৃথক ৪টি দল রাজধানী ঢাকা ও আশপাশের এলাকায় যানবাহন চলাকালে বিভিন্ন অনিয়ম ও ট্রাফিক বিধি মেনে না চলার কারণে অভিযান চালায়। বিজ্ঞপ্তিতে আরো বলা হয়, বিআরটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সাখাওয়াত হোসেনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের একটি টিম জুরাইন এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে ১১টি মামলায় ৪১ হাজার টাকা জরিমানা আদায় ও ২টি গাড়ির কাগজপত্র জব্দ করা হয়। এছাড়া একই সময়ে বিআরটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মুনিবুর রহমানের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অপর একটি দল মিরপুর বিআরটিএ অফিসে অভিযান চালায়। এসময় বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে ৯টি মামলায় ১০ হাজার, টাকা জরিমানা আদায় ও ৭ দালালকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দেয়া হয়। তাছাড়া বিআরটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মাজহারুল ইসলামের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের একটি দল দয়াগঞ্জ এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে ১৪টি মামলায় ১৮ হাজার ৫শ’ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। অপরদিকে বিআরটিএ’র নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মুহাম্মদ আব্দুর রহিম সুজনের নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অপর একটি দল গাজীপুর জেলায় অভিযান চালায়। সেখানে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে ৩২টি মামলায় ১ লাখ ২৯ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়। পরিবহন সেক্টরে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের মাধ্যমে বিআরটিএ’র এ অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও ওই বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়।

ঢাকা প্রতিদিন ডটকম/১৫ মে/এসকে

Loading...

Check Also

গরুকে ক্ষতিকর ইনজেকশন দেয়ায় ২ পশু চিকিৎসকের দণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক : গাবতলীর পশুর হাটে কোরবানির গরুকে স্টেরয়েড জাতীয় ক্ষতিকর ইনজেকশন দেয়ার সময় দুই ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *