Home / তথ্য প্রযুক্তি / নিষিদ্ধ হচ্ছে ফেসবুকের সন্দেহজনক অ্যাপস

নিষিদ্ধ হচ্ছে ফেসবুকের সন্দেহজনক অ্যাপস

ডেস্ক রিপোর্ট : ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা কেলেঙ্কারিতে ফেসবুকে বিশাল ধাক্কা লাগলে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ যাচাই-বাছাই করে ২০০ এর মতো থার্ড পার্টি অ্যাপসকে নিজেদের প্ল্যাটফরম থেকে নিষিদ্ধ করেছে। ফেসবুকের চলমান থার্ড পার্টি অ্যাপ্লিকেশন সংক্রান্ত অডিটের ফলাফল হিসেবে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

গত মার্চে ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা কেলেঙ্কারিতে ব্যবহারকারীদের তথ্য ফাঁস হওয়ার পর ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সহ¯্রাধিক থার্ড পার্টি অ্যাপসকে রিভিউ করে। এই যাচাই বাছাইয়ের পরই ফেসবুক অ্যাপস গুলোকে নিষিদ্ধ করে।

গত ২১ মার্চ অ্যাপগুলো নিয়ে অডিট করা হবে এ সংক্রান্ত একটি ঘোষণা দিয়েছিলেন ফেসবুক সিইও মার্ক জাকারবার্গ। তিনি জানিয়েছিলেন, ফেসবুক কর্তৃপক্ষ সন্দেহজনক যেকোনো অ্যাপকে চিহ্নিত করার জন্য পরিপূর্ণ একটি অডিট চালাবে। আর যেসকল অ্যাপস এই অডিট প্রক্রিয়া অংশ নেবে না তাদেরকে ও নিষিদ্ধ করা হবে বলে জানিয়েছিলেন তিনি।

ব্যবহারকারীদের তথ্য ফাঁস হয়ে গেলো, অতিক্রান্ত হয়ে গেলো দুই মাস। এরই মধ্যে ফেসবুক অ্যাপের এই চলমান অডিট প্রসেস সম্পর্কে ফেসবুকের প্রোডাক্ট পার্টনারশিপের ভাইস প্রেসিডেন্ট আইম আর্চিবঙ্গ বলেন, তদন্ত প্রক্রিয়া পূর্ণ গতিতে এগিয়ে চলেছে।

তিনি আরো বলেন, আমরা নিজস্ব এবং বাইরের বিশেষজ্ঞদের সমন্বয়ে গড়া একটি বিশাল দল নিয়ে বিষয়টি নিয়ে কাজ করে যাচ্ছি। আজ পর্যন্ত আমরা সহ¯্রাধিক অ্যাপসকে তদন্ত করেছি এবং এর মধ্যে ২০০ অ্যাপসকে নিষিদ্ধ করেছি।

আমার অ্যাপসগুলো কোনো তথ্য অপব্যবহার করছে কিনা সেগুলো খতিয়ে দেখছি। তথ্য ফাঁসের কোনো ঘটনা হলেই আমরা অ্যাপসগুলোকে নিষিদ্ধ করবো এবং ব্যবহারকারীদের জানিয়ে দেবো।

তবে আইম আর্চিবঙ্গ ঠিক কয় হাজার অ্যাপসকে তদন্ত করছেন সে সম্পর্কে টেকক্রাঞ্চকে নিশ্চিত করে কিছু বলেনি। তিনি বলেন, সবগুলো সন্দেহভাজন অ্যাপসকে খুঁজে বের করতে আমাদের আরও সময় লাগবে। তবে আমরা যতোটা তাড়াতাড়ি করা সম্ভব সে চেষ্টা করে যাচ্ছি।

ঢাকা প্রতিদিন ডটকম/১৫ মে/এসকে

Loading...

Check Also

যাকাত আনতে গিয়ে সারা দেশে ৩৮ বছরে ১৭০ জনের প্রাণহানি

# যাকাত দিতে পুলিশের অনুমতি লাগবে # লোক সমাগমস্থল উন্মুক্ত ও নিরাপত্তা নিশ্চিত করা # ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *